সিলেটে হেফাজতের সমাবেশে নবী প্রে'মীদের ঢল

হেফাজতে ইস’লাম বাংলাদেশের নব নির্বাচিত আমীর, শায়খুল হাদীস আল্লামা জুনায়দ বাবুনগরী বলেছেন, সমস্ত ম’সজিদের মু’সল্লিরা হেফাজতের সদস্য, সকল ম’সজিদের ই’মাম, মাদরাসার ছাত্র-শিক্ষকগণ হেফাজতের সদস্য। সকল স্কুল-কলেজের ধ’র্মপ্রা’ণ মানুষ হেফাজতের সদস্য। নামাজ, রোজা, হ’জ্জ-যাকাত হলো হেফাজতের কর্মসূচী। হেফাজত বাংলাদেশে নামাজ কায়েম করতে চায়। যারা ইস’লামের শত্রু, রাসূলের দুশমন; নাস্তিক- মুর্তাদদের কবর রচনার জন্য হেফাজতে ইস’লামের অভ্যুদয়। হেফাজত সরকার বিরোধী সংসগঠন নয়, আবার সরকার দলীয় সংগঠনও নয়। বিশ্বের ২ শত কোটি মু’সলমানের ভালোবাসার প্রতীক রাসূল (সা.) এর বি’রুদ্ধে ফ্রান্স সরকার ব্যঙ্গ করে, কটাক্ষ করে মু’সলমানদের কলিজায় আ’গুন লাগিয়েছে। রাসূলের অ’পমানের মোকাবেলায় র’ক্ত সাগর ভাসিয়ে দেবে।

তিনি কাদিয়ানীদেরকে কাফের ঘোষণা করে বলেন, আমি মনে করি স্বয়ং প্রধানমন্ত্রীও কাদিয়ানীদেরকে মু’সলিম বলে মনে করেননা। শুধু ব্যাক্তিগতভাবে কাদিয়ানীদেরকে কাফের মনে করলে হবেনা। রাষ্ট্রীয়ভাবেও কাদিয়ানীদেরকে কাফের ঘোষণা করতে হবে। ৯০ ভাগ মু’সলমানের দেশে কাদিয়ানীদেরকে কাফের ঘোষনায় কোন সমস্যা থাকার কথা নয়।

তিনি বলেন, আম’রা হিন্দুদেরকে কাফের ঘোষণার দাবী জানাইনা, কারণ তারা কাদিয়ানীদের মতো মু’সলিম পরিভাষা ব্যবহার করেনা, নিজেদেরকে মু’সলিম দাবী করেনা। কাদিয়ানীরা অন্যন্য সংখ্যালঘুদের ন্যায় নিজেদের ধ’র্ম পরিচয়ে এদেশে বাস করুক, আমাদের কোন আ’পত্তি নেই। এই কাদিয়ানীরাই বিশ্ব নবীর বড় শত্রু।

তিনি বলেন, সরকারের ঘোষণা অনুযায়ী এদেশ ম’দিনা সনদে চলবে। অন্য কোন সনদে চলবেনা।তাই ম’দিনা সনদের সাথে সাংঘর্ষিক কাজ শক্তভাবে দমন করতে হবে।

ফ্রান্সে রাষ্ট্রীয় ম’দদে মহানবী সা. এর ব্যঙ্গ চিত্র প্রদর্শনের প্রবাদে হেফাজতে ইস’লাম সিলেটের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান অ’তিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন। আল্লামা বাবুনগরী বিকাল ৪.৩৯ মিনিটে তাঁর বক্তব্য শুরু করেন।

আজ শনিবার (২১ নভেম্বর) বেলা ২ ঘটিকার সময় ঐতিহাসিক রিজেস্টারী মাঠে অনুষ্ঠিত সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন, হেফাজতে ইস’লামের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা শায়খুল হাদীস আল্লামা জিয়া উদ্দীন।

সমাবেশে বিশেষ অ’তিথির বক্তব্য রাখেন, হেফাজতের মহাসচিব আল্লামা নূর হুসাইন কাসিমী,নায়েবে আমীর প্রফেসর ড. আহম’দ আবদুল কাদের, উপদেষ্টা শায়খুল হাদীস আল্লামা মুফতী রশিদুর রহমান ফারুক বর্ণভী, শায়খুল হাদীস আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুক আকুনী, নায়েবে আমীর শায়খুল হাদীস আল্লামা নূরুল ইস’লাম খান সুনামগঞ্জী,সাংগঠনিক সম্পাদক মা’ওলানা আজিজুল হক ইস’লামাবাদী, কেন্দ্রীয় নেতা এডভোকেট মা’ওলানা আবদুর রকী'’ব ও সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মা’ওলানা আতাউল্লাহ আমীন।

সমাবেশের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, সমাবেশের অন্যতম আহ্বায়ক প্রিন্সিপাল হাফিজ মা’ওলানা মজদুদ্দিন আহম’দ। বক্তব্য রাখেন সমাবেশের অন্যতম আহ্বায়ক মা’ওলানা মুহিউল ইস’লাম বুরহান।

বিশেষ অ’তিথির বক্তব্যে হেফাজতে ইস’লামের মহাসচিব শায়খুল হাদীস আল্লামা নূর হোসাইন কাসিমী বলেন, আল্লাহর রাসূল সা. এর শান মান রক্ষায় মু’সলিম জাতি র’ক্ত দিতে প্রস্তুত। যতদিন আল্লাহর হাবীবের শানে বেআদবী করা হবে আম’রা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচী পালন করে যাবো। আম’রা সরকারের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানাই, সংসদে অবিলম্বে ফ্রান্সের বি’রুদ্ধে নিন্দা প্রস্তাব আনতে।

হেফাজতে ইস’লামের নায়েবে আমীর প্রফেসর ড. আহম’দ আবদুল কাদের বলেন, বিশ্বের যে কোন স্থানে নবীর অবমাননা সহ্য করা হবেনা। বাংলাদেশে নবীর দুশমনদের প্রতিহত করা হবে।

হেফাজতের উপদেষ্টা শায়খুল হাদীস আল্লামা উবায়দুল্লাহ ফারুক বলেন, মহানবী সা. এর প্রতি ভালোবাসা বিশ্ব মু’সলমানের হৃদয়ে যেভাবে রয়েছে, আমাদের দৈনন্দিন জীবনে নবীর সুন্নাত সমূহ পালন করতে হবে।

কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মা’ওলানা আজিজুল হক ইস’লামাবাদী বলেন, ফ্রান্স ক্ষমা না চাওয়া পর্যন্ত বাংলাদেশে ফ্রান্স দুতাবাস থাকবেনা।

সভাপতির বক্তব্যে হেফাজতের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা শায়খুল হাদীস আল্লামা জিয়া উদ্দিন বলেন, আম’রা রাসূল সা. এর ভালোবাসায় জমায়েত হয়েছি। নানা প্রতিকূলতা সত্ত্বেও আজকের সমাবেশে লাখো মানুষের জমায়েত প্রমান করে রাসূলের সা. এর জন্য সিলেটবাসী যে কোন ত্যাগ স্বীকার করতে প্রস্তুত।

হেফাজতে ইস’লাম সিলেটের অন্যতম নেতা হাফিজ মা’ওলানা তাজুল ইস’লাম হাসান, প্রিন্সিপাল মা’ওলানা সামিউর রহমান মু’সা ও মা’ওলানা বিলাল আহম’দ ইম’রানের যৌথ পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, শায়খুল হাদীস মুফতী মুজিবুর রহমান,শায়খুল হাদীস মা’ওলানা আউলিয়া হোসাইন, মা’ওলানা শায়খ আবদুল বাসির, মহানগর হেফাজত নেতা হাফিজ মা’ওলানা নূরুজ্জামান,মা’ওলানা খলিলুর রহমান, অধ্যাপক বজলুর রহমান, জে’লা হেফাজত নেতা মা’ওলানা ইকবাল হোসাইন,মা’ওলানা আহম’দ বেলাল, মা’ওলানা গাজী রহমতুল্লাহ, হাফিজ আবদুর রহমান সিদ্দিকী'’, মুফতী ফয়জুল হক জালালাবাদী, মা’ওলানা নাসির উদ্দিন,কারী মা’ওলানা সিরাজুল ইস’লাম, মা’ওলানা আতাউর রহমান কোম্পানিগঞ্জী, সিলেট সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর রেজাউল হাসান কয়েস লোদী, মা’ওলানা খলিলুর রহমান, মা’ওলানা সিরাজুল ইস’লাম, মা’ওলানা আহম’দ সগীর, মওলানা ইউসুফ খাদিমানী, মা’ওলানা মুখলিছুর রহমান, মা’ওলানা হাবীব আহম’দ শিহাব, মা’ওলানা এম’দাদুল্লাহ, মা’ওলানা সাইফুল্লাহ, মা’ওলানা কাজী আবদুল ওয়াদুদ, মা’ওলানা শাহ মমশাদ আহম’দ, মা’ওলানা আবদুল মালিক কাসিমী,মা’ওলানা শামসুদ্দিন মুহাম্ম’দ ইলয়াস,মা’ওলানা মুজিবুর রহমান কাসিমী,হাফিজ মা’ওলানা ফখর্জুামান, মা’ওলানা এবাদুর রহমান, মা’ওলানা আবদুল গফফার, মা’ওলানা রফিকুল ইস’লাম, মা’ওলানা এম’রান আলম, মা’ওলানা ইকবাল আহম’দ,মা’ওলানা আবদুস সামাদ, মা’ওলানা সুহাইল আহম’দ, মা’ওলানা মুশাহিদ খালপারী, মা’ওলানা আলী আম’দ, মা’ওলানা আতিকুর রহমান, মা’ওলানা মুশফিকুর রহমান মামুন,মা’ওলানা মাসুক আহম’দ সালামী, মা’ওলানা জিল্লুর রহমান,মা’ওলানা শি’ব্বির আহম’দ, মা’ওলানা জাহিদ উদ্দীন চৌধুরী, মা’ওলানা হাফিজ জামিল আহম’দ আনসারী,মা’ওলানা এহতেশাম কাসিমী,মা’ওলানা মামুনুর রশীদ, মা’ওলানা তালিব উদ্দীন, মা’ওলানা আলী আহম’দ, মা’ওলানা নজরুল ইস’লাম, মা’ওলানা নূর আহম’দ কাসিমী, মা’ওলানা ফাহাদ আমান, মা’ওলানা আবদুল্লাহ নেজামী,মা’ওলানা নিয়ামতুল্লাহ খাসদবিরী, মা’ওলানা অলিউর রহমান, মা’ওলানা হাফিজ আলী আহম’দ, মা’ওলানা আমীন উদ্দীন, মা’ওলানা আবদুল মুছাব্বির, মা’ওলানা মা’ওলানা কয়েছ আহম’দ, মা’ওলানা পীর আবদুল জব্বার, মা’ওলানা আফতাব উদ্দীন নোমানী, মা’ওলানা নাজিম উদ্দিন, মা’ওলানা কাম’রুল ইস’লাম ছমীর, রোটারিয়ান মা’ওলানা মুহাম্ম’দ আলী, মা’ওলানা নাজমুল হোসাইন, মা’ওলানা আবুল কালাম আজাদ, মা’ওলানা কবীর আহম’দ খান, হাজী আব্বাস উদ্দীন জালালী, মা’ওলানা ইম’দাদুল হক, মা’ওলানা আলী আবিদীন, মা’ওলানা জাহাঙ্গীর আলম, হাফিজ ফুজায়েল আহম’দ, মা’ওলানা তারেক আহম’দ, মা’ওলানা একরামুল হক জুনাইদ ও মা’ওলানা লুৎফুর রহমান প্রমূখ।

সমাবেশ রেজিস্টারী মাঠে হলেও পূর্ব দিকে বন্দরবাজার, পশ্চ’ম দিকে কাজির বাজার ব্রীজ পর্যন্ত কয়েক লক্ষ ধ’র্ম প্রা’ণ জনসাধারণের পদভা’রে মুখরিত ছিল। সমাবেশে ফ্রান্সের বি’রুদ্ধে সংসদে নিন্দা প্রস্তাব পাশ, সিলেটে হোটেলসমূহে ম’দের অনুমোদন বাতিল ও মা’দকের অবাধ ছডাছডি বন্ধ ও রায়হান হ’ত্যাকারীদের সর্বোচ্চ শা’স্তির দাবী সম্বলিত ৩ দফা দাবী পেশ করা হয়।

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!