ছাত্রকে বিয়ে করা শিক্ষিকার ম'রদেহ উ'দ্ধার, স্বামী আ'ট'ক

নাটোরের গুরুদাসপুরে কলেজছাত্রকে বিয়ের ছয় মাস পর শিক্ষিকা খায়রুন নাহারের (৪০) ম'রদেহ উ'দ্ধার করেছে পু'লিশ।

রোববার (১৪ আগস্ট) সকালে নাটোর শহরের বলারিপাড়া এলাকায় ভাড়া বাসা থেকে তার ম'রদেহ উ'দ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় তার স্বামী মামুনকে (২২) আ'ট'ক করেছে পু'লিশ।

নাটোর সদর থা'নার ভা'রপ্রাপ্ত কর্মক'র্তা (ওসি) নাসিম আহমেদ ম'রদেহ উ'দ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

শিক্ষিকা মোছা. খাইরুন নাহার গুরুদাসপুরের খুবজিপুর এম হক ডিগ্রি কলেজের সহকারী অধ্যাপক। মামুন উপজে'লার ধারাবারিষা ইউনিয়নের পাটপাড়া গ্রামের মোহাম্মাদ আলীর ছে'লে এবং নাটোর এন এস সরকারি কলেজের ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

এক বছর আগে ফেসবুকে শিক্ষিকা খাইরুনের সঙ্গে মামুনের পরিচয় হয়। পরে তাদের দুজনের মধ্যে ঘনিষ্ঠ স'ম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে দুজন বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। গত বছরের ১২ ডিসেম্বর কাজি অফিসে গিয়ে দুজন গো'পনে বিয়ে করেন। বিয়ের ছয় মাসেরও বেশি সময় পার হওয়ার পর সম্প্রতি বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয়। তবে ছে'লের পরিবার মেনে নিলেও মে'য়ের পরিবার মেনে নেয়নি।

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!